ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে

ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে?

অনলাইন থেকে আয় করার চমৎকার একটি মাধ্যম হলো Digital Marketing. বাংলাদেশ সহ পৃথিবীর প্রায় প্রতিটি দেশেই ডিজিটাল মার্কেটিংয়ের প্রচুর চাহিদা রয়েছে। দিন যত পার হচ্ছে এর ডিমান্ড ততই বাড়ছে। কিন্তু আপনি কি জানেন Digital Marketing কাকে বলে? আর ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে ?

আমার কাছে অনেকেই জিজ্ঞাসা করেন, ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় কী বা ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে শিখব? সেই বন্ধুদের কাঙ্খিত প্রশ্নের উত্তর নিয়েই এই আর্টিকেলটি তৈরি করেছি।

ডিজিটাল মার্কেটিংকে বর্তমান সময়ের অনলাইন ইনকাম এর সবচেয়ে আলোচিত বিষয় বলা যায়। কেননা, আপনি যদি কোন অভিজ্ঞ লোক বা কোন ট্রেনিং সেন্টারে গিয়ে জিজ্ঞাসা করেন ‘অনলাইন থেকে আয়’ করার সবচেয়ে সহজ ও দ্রুততম মাধ্যম কোনটি? দেখবেন যে ৯০% মানুষ এই প্রশ্নের আন্সার দেবে হয়ত ‘Digital Marketing.

এর কারণ হলো এটি শেখার জন্য আপনার উচ্চ লেভেলের একাডেমিক সার্টিফিকেট বা যোগ্যতার প্রয়োজন নেই। প্রায় যে কোন শ্রেণী-পেশার মানুষ সামান্য পরিশ্রমের মাধ্যমেই ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে পারে।

পড়ার সাজেশনঃ
ফ্রিল্যান্সিং এর কাজ সমূহ কি কি?
সেরা ০ টাকা ইনকাম করার ওয়েবসাইট

”ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে” এই প্রশ্নের উত্তর জানার আগে ডিজিটাল মার্কেটিং বলতে কি বুঝায় তা জেনে নেওয়া যাক।

ডিজিটাল মার্কেটিং কাকে বলে?

Digital Marketing বলতে প্রযুক্তির ব্যবহারে অর্থাৎ, ইন্টারনেট ও ডিজিটাল ডিভাইস ব্যবহারে সাধারণ মানুষের কাছে যেই পদ্ধতি অনুসরণ করে প্রচারণা করা হয় তাকেই Digital Marketing বলে।

বিষয়টি আরেকটু সহজ ভাবে বলি, কোন প্রতিষ্ঠানের পণ্য বা সেবা অনলাইনের মাধ্যমে যেমন, ফেসবুক – ইউটিউব এবং গুগলসহ ইন্টারনেট ভিত্তিক যে কোন মাধ্যমকে ব্যবহার করে প্রচার করা হয়, তার পদ্ধতিকেই Digital Marketing বলে।

”Digital Marketing কি” তার উপর আমাদের একটি আর্টিকেল রয়েছে। অবশ্যই পড়ুনঃ ডিজিটাল মার্কেটিং কি? 

ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে বা লাগতে পারে তা সহজে বুঝার জন্য Digital Marketing এর প্রকারভেদ সম্পর্কে জানা জরুরি।

ডিজিটাল মার্কেটিং কত প্রকার?

প্রযুক্তির নতুন নতুন ডিভাইস ও সফটওয়্যারের ফিচার প্রতি নিয়তই পরিবর্তন হচ্ছে। তাই আমি মনে করি Digital Marketing এর প্রকারভেদকে সুনির্দিষ্টকরণ করে সংখ্যা হিসেবে বলাটা যুক্তিযোগ্য নয়।

বরং ডিজিটাল মার্কেটিং এর প্রধান স্তম্ভ কয়টি তা নিয়ে বলা যেতে পারে। যেমনঃ

  • সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং
  • এসইও (সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন)
  • অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং
  • ইমেইল মার্কেটিং
  • ভিডিও মার্কেটিং
  • কন্টেন্ট রাইটিং
  • ব্লগ বা আর্টিকেল মার্কেটিং
  • পিডিএফ মার্কেটিং
  • মোবাইল মার্কেটিং ইত্যাদি।

এই প্রত্যেকটা বিষয় Digital Marketing এর অংশ। আপনি যদি এই বিষয়গুলো সম্পর্কে ধারণা রাখেন, তবে নিজেই উপলব্ধি করতে পারবেন ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে বা লাগতে পারে।

Digital Marketing এর উপরোল্লিখিত বিষয়গুলো নিয়ে ইতোমধ্যেই আমাদের এই ওয়েবসাইটে একটি আর্টিকেল প্রকাশ করা হয়েছে। অবশ্যই পড়ুনঃ ডিজিটাল মার্কেটিং কিভাবে করতে হয়?

ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে?

অনলাইন ভিত্তিক প্রচারণার পুরো সিস্টেমকে Digital Marketing বলে। Digital Marketing ইন্ড্রাস্ট্রিটি অনেক বিশাল। যার পুরোটা শিক্ষা করে অল্প সময়ে শতভাগ পার্ফেক্ট হওয়া দুষ্কর ব্যাপার।

আমি Digital Marketing এর ছোট্ট একটি সেক্টর “এসইও” (SEO) নিয়ে কাজ করছি প্রায় ৬ বছর ধরে। আমার অভিজ্ঞতায় যা বুঝেছি, আপনি যদি ডিজিটাল মার্কেটিং এর ’এসইও’ সেক্টরটি নিয়েই কাজ করেন তবে SEO পুরোপুরি ভাবে আয়ত্বে আনতে বছরের পর বছর সময় লেগে যাবে।

তবে SEO এর কনসেপ্ট এবং কাজগুলোকে আয়ত্বে আনতে সর্বোচ্চ ৩০ দিন লাগতে পারে। যদি আপনি নিয়মিতই ৩/৪ ঘন্টা দিয়ে মনোযোগ সহকারে শিখেন।

পড়ার সাজেশনঃ
স্টুডেন্ট অনলাইন ইনকাম করার সেরা ৫ উপায়
ফেসবুকে কিভাবে টাকা আয় করা যায়?

ঠিক একই ভাবে Digital Marketing এর অন্যান্য সেক্টরগুলো শেখার ক্ষেত্রে এমনই সময় লাগতে পারে। তবে শেখার ধরণের উপরও সময়ের ব্যবধান হতে পারে।

উদাহরণস্বরূপ ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায় গুলো বলি, তাহলে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে তা সহজেই বুঝতে পারবেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং শেখার উপায়

বিভিন্ন ভাবে Digital Marketing শেখা যায়। তারমধ্যে যেমনঃ ভিডিও টিউটোরিয়াল কোর্স, লাইভ ক্লাস, ইউটিউব ভিডিও দেখে, বই বা আর্টিকেল পড়ে ইত্যাদি।

ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স

Digital Marketing কোর্স বলতে আইটি ফার্ম কর্তৃক প্রশিক্ষণ ক্লাস, যেই ক্লাসগুলোর ভিডিও চিত্র ধারণ করা হয়েছে এবং এককালীন টাকার বিনিময়ে তা শিক্ষার্থীদের কাছে বিক্রি করা হচ্ছে।

তবে এই ধরণের কোর্সের মাধ্যমে Digital Marketing এর সমস্ত সেক্টরগুলো নিয়ে আলোচনা করা হয় না। একটি কোর্সে একটি বিষয়েই আলোচনা থাকে।

হতে পারে সেটা SEO / Social media /Content Writing বা Affiliate মার্কেটিং। এই সবগুলো বিষয় একটি কোর্সে একসাথে পাবেন না।

এই ধরণের ভিডিও কোর্সগুলো দেখে Digital Marketing শেখার জন্য মাত্র ৩০ দিনই যথেষ্ট। কেননা, আপনার হাতে যদি সময় থাকে তবে নিয়মিত ৮-৯ ঘন্টা ভিডিও দেখতে পারবেন।

উল্লেখ্য বিষয় হলো Digital Marketing শেখার জন্য আপনাকে কোন প্রকার ক্রিয়েটিভ কাজ শিখতে হবে না। কিছু নির্দিষ্ট সফটওয়্যার বা ওয়েবসাইটের ব্যবহার শেখানো হবে, যার সাথে কিছু নিয়ম বলে দেওয়া হবে।

কোর্সের মাধ্যমে ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে তা সম্পূর্ণরূপে আপনার উপর নির্ভর করবে।

Digital Marketing লাইভ ক্লাস

এটি মূলত কোন Digital Marketing প্রশিক্ষণ কেন্দ্র বা অভিজ্ঞ ব্যক্তি হতে সরাসরি ভাবে শিক্ষা নেওয়া। এই ধরণের প্রশিক্ষণ দুই ভাবে হতে পারে।

  • স্বশরীরে প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে
  • ইন্টারনেটে লাইভ পদ্ধতি ব্যবহার করে।

Digital Marketing শেখার জন্য এই দুটি বিষয় একই পর্যায়ের। এতে কোন প্রকার ডিফারেন্ট নেই।

আপনাকে Digital Marketing এর সমস্ত বিষয়স্তু একসাথে শেখানো হবে না। কোন প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে যাওয়ার পর ডিজ্ঞাসা করা হবে Digital Marketing এর কোন সেক্টরে আপনি কাজ করতে আগ্রহী?

অর্থাৎ,  SEO / Social media /Content Writing, Blogging ইত্যাদির কোনটা শিখবেন? আপনি যদি এখান থেকে SEO বেছে নিন, তবে এসইওর উপরই প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। আবার যদি Social media মিডিয়ার উপর Digital Marketing শিখতে চান তবে আপনাকে তাই শেখানো হবে।

পড়ার সাজেশনঃ
অনলাইনে ইনকাম বাংলাদেশী সাইট
ফ্রিল্যান্সিং কি হালাল নাকি হারাম?

Digital Marketing এর প্রত্যেকটা শাখা এক নয়। তাই শাখা নির্বাচন ও কাজের ধরণ অনুযায়ী ”ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে” তা নির্ভর করবে।

তবে সরাসরি প্রশিক্ষক থেকে শিক্ষা নেওয়ার পদ্ধতি অনুসরণ করে Digital Marketing শেখার জন্য আপনাকে ৬ থেকে এক বছর সময় লাগতে পারে। কারণ, সরাসরি শেখার রুলস গুলো একটু ভিন্ন হয়।

অর্থাৎ, প্রশিক্ষকেরা তাদের সুবিধা অনুযায়ী প্রশিক্ষণের সময় নির্ধারণ করে দেয়। যেমনঃ সাপ্তাতে ২ দিন ক্লাস বা মাসে ৪ দিন ক্লাস। তাও আবার প্রতিটি ক্লাস হবে -২ ঘন্টার।

আপনি যদি সরাসরি ভাবে কারো থেকে Digital Marketing এর উপর প্রশিক্ষণ নিতে যান, তবে শাখা নির্বাচন করার পর “ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে” তা প্রশিক্ষক এবং আপনার লার্নিং এর উপর ভিত্তি করবে।

সাধারণত সরাসরি ভাবে প্রশিক্ষকদের কাছ থেকে শিখতে গেলে অনেক সময় লাগে। যদিওবা সরাসরি শেখার ক্ষেত্রে এক্সটা কিছু বেনিফিট রয়েছে।

ইউটিউব ভিডিও দেখে ডিজিটাল মার্কেটিং

ইউটিউব ভিডিও দেখে Digital Marketing এর সমস্ত বিষয়বস্তু ধারাবাহিক ভাবে শেখাটা একটু কষ্টকর। কেননা, ইউটিউবে Digital Marketing উপর A -Z ধারাবাহিক ভিডিও নাও পেতে পারেন।

তবে ইউটিউব ভিডিও দেখে Digital Marketing শেখা অবশ্যই সম্ভব। তবে এটা সত্যিই অনেক সময়ের ব্যাপার। আপনাকে প্রথমেই ভালো ভালো ভিডিও খুঁজে বের করতে হবে।

ইউটিউব থেকে কোয়ালিটি সম্পূর্ণ Digital Marketing এর উপর ধারাবাহিক ভিডিও খুঁজে পেতেই অনেকদিন লেগে যাবে।

এই দৃষ্টিকোণ থেকে আপনার জন্য ’ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে’ তা আমরা বলতে পারবো না। এটা সম্পূর্ণ আপনার এক্টিভিটির উপর নির্ভর করবে।

বই বা আর্টিকেল পড়ে ডিজিটাল মার্কেটিং

বই এবং বিভিন্ন ওয়েবসাইটের আর্টিকেল পড়ে ডিজিটাল মার্কেটিং শেখা যায়। তবে এই পদ্ধতিতে Digital Marketing শেখাটা সময় সাপেক্ষ ব্যাপার।

তবে এটা সত্য যে, বই থেকে Digital Marketing শিখতে গেলে এটাতে আপনি ধারাবাহিতা পাবেন। তবে Digital Marketing এর উপর বর্তমানে যেই বইগুলো আছে, সেই গুলোতে আবার বিভিন্ন ইউটিউব ভিডিও, কোর্স, ওয়েবসাইটের আর্টিকেল লিংক হিসেবে রেফার করা থাকে।

পড়ার সাজেশনঃ
লেখালেখি করে আয় করার নিয়ম
কিভাবে ব্লগিং শুরু করবো?

বিষয়টা এমন যে, আপনি শুধুমাত্র একটি বই পড়ে Digital Marketing এর সমস্ত কাজ শিখতে পারবেন না। পারলেও অনেক কষ্টসাধ্য ব্যাপার এটি।

বই থেকে Digital Marketing শিখতে গেলেও আপনাকে বিভিন্ন কোর্স / ভিডিও / আর্টিকেল ইত্যাদি পড়তে হবে। এক্ষেত্রে Digital Marketing শেখার জন্য ‘ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স’ গুলোই আমার কাছে সবচেয়ে ভালো অপশন মনে হয়।

গুরুত্বপূর্ণ কিছু কথাঃ

ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে তার নির্দিষ্ট সময় বলা যায় না। কেননা, মানুষের শিক্ষা ও কর্মক্ষমতা সীমিত পর্যায়ের।

যে ফাস্ট লার্নার সে হয়তো Digital Marketing এর সমস্ত বিষয়বস্তু ৩ মাসেই শিখতে পারবে। আবার যে স্লো লার্নার তার সেই একই কাজ শিখতে হয়তো ৬ মাসের অধিক সময় লাগতে পারে। কারো কারো ক্ষেত্রে এরচেয়ে কম বা বেশী সময় লাগতে পারে।

সবচেয়ে বড় বিষয় হলো, Digital Marketing ইন্ড্রাস্টিতে প্রতিনিয়তই নতুন নতুন নিয়ম তৈরি হচ্ছে। পুরাতন অনেক নিয়ম বাদ পড়ে যাচ্ছে।

তবে Digital Marketing এর মূল উদ্দেশ্য কখনই পরিবর্তন হবে না। আপনি এই বিষয়ে যত ঘাটাঘাটি করতে পারবেন ততই শিখতে পারবেন।

আমি পার্সোনালি সাজেস্ট করবো, আপনি যদি Digital Marketing নিয়ে কাজ করতেই চান তবে প্রথমেই Digital Marketing ইন্ড্রাস্ট্রির ছোট্ট কোন শাখাকে টার্গেট করে কাজ শিখুন। যেহেতু অনলাইন ভিত্তিক প্রচারণার পুরো সিস্টেমকে Digital Marketing বলে, সেহেতু পুরো সিস্টেমকে একসাথে শেখার যুক্তিকথা নেই।

পড়ার সাজেশনঃ
ঘরে বসে মোবাইলে আয় করার সেরা উপায়
ইউটিউব থেকে আয় করার নিয়ম

Digital Marketing এর শাখাগুলোর সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ও চাহিদা সম্পূর্ণ কাজ গুলোর মধ্যে রয়েছেঃ SEO Marketing, Social media Marketing, Blogging এবং Affiliate Marketing ইত্যাদি।

আপনি Digital Marketing এর এই শাখা গুলোর যে কোন একটা শাখা নিয়ে কাজ শুরু করতে পারেন। তবে খুব সহজেই অতি অল্প সময়ে সফলতা দেখতে পাবেন ইনশাআল্লাহ।

প্রিয় পাঠক, আমি আশা করছি  ডিজিটাল মার্কেটিং শিখতে কতদিন লাগে বা লাগবে তার উপর পূর্ণাঙ্গ ধারণা পেয়েছেন। এই বিষয়ে আপনার যদি আরো কোন প্রশ্ন থাকে তবে অবশ্যই কমেন্ট করুন। আমরা যথাসাধ্য উত্তর দেবো ইনশাআল্লাহ।

NAZIRUL ISLAM NAKIB

যত জ্ঞান-ধন করেছি অর্জন জীবনের প্রয়োজনে,
তার সবটুকুই বিলাতে চাই সৃষ্টির কল্যাণে।

Add comment

error: Content is protected !!