Blue light

Blue light এর ক্ষতিকর রশ্মি থেকে আপনার চোখ বাঁচান! স্মার্টফোন ইউজারদের জন্য

প্রযুক্তির একটি বড় সফলতা হলো স্মার্টফোন বা এন্ড্রয়েড ফোন। বিজ্ঞানের এই সফলতকে গগনচুম্বী বলা যায়। কেননা, স্মার্টফোনের ব্যবহার প্রতিটা মানুষের নিকট পৌঁছে গেছে। জীবন চলার পথে স্মার্টফোন কৃত্রিম জীবন সঙ্গী। স্মার্টফোনের কারণে আমাদের বিভিন্ন কাজ সহজভাবে করতে পারি। যদিও কম্পিউটারের তুলনা শুধুই কম্পিউটার। তবুও সাধারণ সমস্যাগুলো সমাধানের সহায়ক ও কম্পিউটারের বিকল্প হিসেবে স্মার্টফোনের ব্যবহার সবকিছুর উর্ধ্বে।

জীবন চনার পথে স্মার্টফোন আমাদের জন্য যেমন সহায়ক তেমনই শারীরিক ক্ষেত্রে ক্ষতিকর। যদিও সেই ক্ষতির প্রভাব মূহুর্তেই অনুভব করা যায় না। কিন্তু ধীরে ধীরে স্মার্টফোন মানবজীবনে এতটাই ক্ষতি করে, যা বুঝানোর মতো নয়। জীবনের প্রতিটা কাজেই আমাদের যেমন সচেতন হওয়া জরুরি, ঠিক তেমনই স্মার্টফোন ব্যবহারের ক্ষেত্রেও সচেতন হওয়া জরুরি।

স্মার্টফোন আমাদের কিভাবে ক্ষতি করে?

স্মার্টফোনের স্কিনের আলোতে Blue light নামে একটি রশ্মি আছে যা মানুষের চোখের জন্য অনেক বেশী ক্ষতিকর। ব্লু-লাইট এর কারণে চোখে নানা রকমের সমস্যা দেখা দিতে পারে। অধিক সময় মোবাইলে স্কিনে তাকিয়ে কোন কাজ করলে চোখ দিয়ে পানি পড়তে দেখা যায়। আবার চোখ রক্তবর্ণ হয়ে যায়। চোখে কম দেখে। দূরের কোন জিনিস দেখতে ঝাপসা লাগে। বিশেষ করে একাধারে যারা স্মার্টফোন ইউজ করে তাদের মধ্যে অনেকেই চোখের সমস্যায় সম্মুখীন হয়। এর থেকে বেঁচে থাকার উপায় একমাত্র স্মার্টফোন ব্যবহার ছেড়ে দেওয়া। 

জানি, এটা সহজেই কেউ পারবেন না। তবে স্মার্টফোন ব্যবহারের ক্ষেত্রে আমাদের অবশ্যই সচেতন হওয়া জরুরি। অল্প বয়সেই যেনো চোখ হারাতে নাহয় এটার প্রতি লক্ষ্য রাখা একান্ত কর্তব্য মনে করি। যারা Blue light এর ক্ষতিকর রশ্মি থেকে নিজের চোখকে বাঁচাতে চান, তারা একটি ছোট্ট অ্যাপ ব্যবহার করতে পাবেন। যদিও এটা স্থায়ী সমাধান নয়, তবে অবশ্যই Blue light এর ক্ষতিকর রশ্মি থেকে আপনার চোখ অনেকটাই বেঁচে যাবে ইনশাআল্লাহ।

আপনার স্মার্টফোন থেকে ডাউনলোড করে নিন  Download 

yh

এই অ্যাপটি ডাউনলোড করে আপনার ফোনে ইনিস্টল করে নিন। তারপর অ্যাপটি ওপেন করে আপনার স্কিনের আলোটা একটু কমিয়ে নিন। আপনি যখন আলো কমাতে যাবেন, তখন দেখেবেন আপনার স্মার্টেফোনের স্কিনটা একটু ঘোলাটে হয়ে যাবে। হয়ত এই ঘোলাটে অবস্থাটা আপনার কাছে প্রথমত পছন্দ মনে হবে না। কিন্তু মনে রাখবেন, এই ঘোলাটে কালারটা আপনার চোখকে Blue light এর ক্ষতিকর রশ্মি থেকে বাঁচাতে সাহায্য করবে।

স্মার্টফোন ইউজার। আপনি প্রথমত যদি এই ঘোলাটে আলো পছন্দসই মনে না করেন, তবে ওটাতে আলো বাড়ানো-কমানোর অপশন আছে। পছন্দ মতো আলো কমিয়ে নিন। তবে অবশ্যই চেষ্টা করবেন যে, সবসময় স্মার্টফোনের আলো কমিয়ে রাখতে। আশাকরি Blue light এর ক্ষতি থেকে আপনি বেঁচে যাবেন ইনশাআল্লাহ

প্রিয় ভাই-বোন, আমরা আপনাদের সর্বদা কল্যাণ কামনা করি। আপনাদের আপনজন, বন্ধু-বান্ধবের সাথে Blue light সম্পর্কে আলোচনা করুন, সবাইকেই সচেতন করুন। প্রয়োজনে সবার কাছে আমাদের আর্টিকেলগুলো শেয়ার করুন। মহান আল্লাহ সবাইকে ভালো রাখুন, সবাই সুস্থ থাকুন। আল্লাহ হাফেজ।

 

Add comment